বিনোদন

ময়মনসিংহের সঞ্জীতা শাহরুখের ‘জাওয়ান’ সিনেমায়

বিনোদন ডেস্ক: অভিনেত্রী সঞ্জীতা ভট্টাচার্য। জন্মসূত্রে বাঙালি, বেড়ে ওঠা দিল্লিতে। তার বাবা কলকাতার এবং মা ময়মনসিংহের। সে কারণে নিজেকে প্রবাসী বাঙালি বলে সম্বোধন করেন। বলিউড বাদশাহ শাহরুখ খানের নতুন সিনেমা ‘জাওয়ান’ দিয়ে বলিউডে অভিষেক হতে চলেছে এ গায়িকা, অভিনেত্রী সঞ্জীতা ভট্টাচার্যের।

শাহরুখের সঙ্গে পর্দায় কাজ করা নিয়ে উচ্ছ্বাসের শেষ নেই এই বাঙালি অভিনেত্রীর। সম্প্রতি ভারতের একটি গণমাধ্যমে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে নিজের ব্যক্তিজীবন ও ‘জাওয়ান’ সিনেমায় কাজের অভিজ্ঞ জানিয়েছেন সঞ্জীতা।

তিনি বলেন, আমার বেশ কিছু বন্ধু আছে যারা বাঙালি কিন্তু এক ফোঁটা বাংলা বলতে পারে না। আমি আসলে প্রবাসী বাঙালি ঠিকই। তবে আমার বাবা কলকাতার, আর মা ময়মনসিংহের। তাই বাঙাল-ঘটি মিলিয়ে বাংলার চলটাই আমাদের বাড়িতে বেশি।

শাহরুখ খানের ‘জাওয়ান’ সিনেমায় অভিনয়ের সুযোগ প্রসঙ্গে সঞ্জীতা বলেন, ২০২১ সালের জুলাইতে নেটফ্লিক্সে আমার প্রথম সিরিজ ‘ফিলস লাইক ইশক’ মুক্তি পেয়েছিল। তার এক মাস পরেই অর্থাৎ আগস্টে ‘জাওয়ান’ ছবিটিতে অভিনয়ের জন্য ফোন পাই। অতিমারির সময়েই। আমি জানি না তারা কীভাবে আমাকে খুঁজে পেয়েছিলেন। সিরিজটি থেকেই বোধ হয়, কারন তারপরেই আমার কাছে ফোন আসে। তবে আমাকে অডিশন দিতে হয়েছিল।

শাহরুখ-নয়নতারাকে নিয়ে তার ভাষ্য, আমি ভীষণই লাকি! শাহরুখ স্যার তো অসামান্য। উনি সেটে থাকা মানেই আমরা সবাই বাড়তি এনার্জি পেয়ে যেতাম। তবে নয়নতারাও অসাধারণ। এত বড় তারকা, অথচ তার থেকে বিনম্রতা শিখতে হয়। প্রতিদিন নিজেকে নতুন করে আবিষ্কার করা, প্রতিদিন নিজের কাজের জন্য কোনও রকম অভিযোগ না করে পরিশ্রম করা- এই শিক্ষাগুলোই ‘জাওয়ান’-এর সেট থেকে আমার সব থেকে বড় পাওনা। দীপিকার সঙ্গে আমার কোনো দৃশ্য নেই। তবে নয়নতারার সঙ্গে অভিনয় করতে পেরেছি, এটা আমার জীবনের অন্যতম বড় পাওনা।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button