নান্দাইলে কলেজ ছাত্র খুনের মামলায় ছাত্রলীগ নেতা গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিনিধি (ময়মনসিংহ) :
ময়মনসিংহের নান্দাইলে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনী সহিংসতায় আলোচিত কলেজ ছাত্র মুরাদ হাসান ভূঁইয়া খুনের মামলায় সরকারি শহীদ স্মৃতি আদর্শ কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. শরিফুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। মুরাদ আনারস প্রতীকের একজন  চেয়ারম্যান প্রার্থীর পক্ষে লিফলেট বিতরণ করায় প্রতিপক্ষের দুর্বৃত্তদের ছুরিকাঘাতে তার মৃত্যু হয়েছে।
গত রোববার মধ্যরাতে গাজীপুরের জয়দেবপুর এলাকা থেকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যরা তাকে গ্রেপ্তার করেন।
গ্রেপ্তারকৃত শরিফুল ইসলাম কলেজ ছাত্র মুরাদ হত্যা মামলার এজাহারভুক্ত ৩ নম্বর আসামি। তিনি নান্দাইল পৌরসভার ৮ নম্বর ওয়ার্ডের আবুল মুনসুরের ছেলে।
নান্দাইল মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আব্দুল মজিদ গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
গত শনিবার (০১ জুন) রাতে নিহত  মুরাদের পিতা তফাজ্জল হোসেন ভূঁইয়া বাদী হয়ে নান্দাইল পৌর ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আব্দুস সালাম, সরকারি শহীদ স্মৃতি আদর্শ কলেজের ছাত্রলীগের সভাপতি মোফাজ্জল হোসেন, সাধারণ সম্পাদক শরিফুল ইসলাম, ছাত্রলীগ নেতা আশরাফুল আলম হামিম, পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা মো. নাদিম, মো. লাবন, যুবলীগ নেতা সাজিদ হাসান নিপুন, ছাত্রলীগ নেতা মো. মুরাদ, মো. মাজহারুল, মিজান ও মো. আমিন সহ ৩-৪ জন অজ্ঞাতকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করেন।
গত শুক্রবার (৩১ মে) রাত সাড়ে ৮টার দিকে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আনারস প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থী এমদাদুল হক ভূঁইয়ার নির্বাচনী লিফলেট বিতরণ করতে গিয়ে  প্রতিপক্ষের দুর্বৃত্তদের ছুরিকাঘাতে মুরাদ হাসান ভূঁইয়া গুরুতর আহত হন।  তারপর সংকটাপন্ন অবস্থায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত বলে ঘোষণা করেন।
প্রসঙ্গত, আগামী ৫ জুন  নান্দাইল উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এতে চেয়ারম্যান পদে তিনজন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।
এই বিভাগের আরো খবর