চরফ্যাশনে চিকিৎসকের বিরুদ্ধে রোগীর স্বজনকে মারধরের অভিযোগ

নিজস্ব সংবাদদাতা, চরফ্যাশন॥ ভোলার চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিকেল অফিসার ডা. হোসাইন শাওনের বিরুদ্ধে রোগীর সঙ্গে আসা স্বজনকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে।
চেয়ারম্যান বাজার মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের চর্তুথ শ্রেণীর কর্মচারী জাকির হোসেন জানান, তিনি তার অসুস্থত মা সাফিয়া বেগমকে (৮০) রবিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপেক্সে নিয়ে আসেন। হাসপাতালের জরুরী বিভাগে কতব্যরত চিকিৎসক তার মাকে পর্যবেক্ষন না করে অনুমান নিভর কিছু টেস্ট লিখে দিয়ে তা করিয়ে রির্পোট দেখাতে বলেন। এসময় জাকির হোসেন তার মাকে একটু ভালো করে পর্যবেক্ষন করার অনুরোধ জানালে ডা.তাসফিয়া মুন ক্ষেপে যান এবং তার স্বামী একই হাসপাতালে কমরত মেডিকেল অফিসার ডা.হোসেন শাওনকে ফোন করেন। তিনি এসে জাকিরের সঙ্গে কথা বলবেন বলে তাকে ১০৪নম্বর কক্ষে নিয়ে যান এবং সেখানে দরজা বন্ধ করে তাকে মারধর করেন।
অভিযোগের বিষয়ে ডা. হোসেন শাওন সাংবাদিকদের বলেন, আমার স্ত্রী ডা.তাসফিয়া মুন টেস্টের জন্য লিখে দিলে টেস্ট করালে পাসেন্টিজ পাবেন এই কথা বলে তার সঙ্গে জাকির তকে জড়ায়। পড়ে আমি এসে তাকে ডেকে নিয়ে বিষয়টির সমাধা দেয়ার চেষ্টা করি কিন্তু সে আজে বাজে কথা বলায় পুলিশ ডেকে তাকে পুলিশে সোপদ করি। পুলিশ বিষয়টি সমাধান করে দেন। জাকিরকে মারধরের অভিযোগ অস্বীকার করেছেন ডা. হোসেন শাওন।
চরফ্যাশন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কমকতা ডা. শোভন কুমার বসাক বলেন, এধরনের ঘটনা শুনে আমি সেখানে গিয়েছিলাম। আমি গিয়ে কাউকে পাইনি। এধরনের কিছু হয়ে থাকলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

এই বিভাগের আরো খবর