আগুন সন্ত্রাস করে উন্নয়ন ব্যাহত করা যাবে না: এনামুল হক শামীম

নিজস্ব প্রতিবেদক : বিএনপি’র উদ্দেশ্যে পানি সম্পদ উপমন্ত্রী ও আওয়ামীলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম এনামুল হক শামীম এমপি বলেছেন, আগুন সন্ত্রাস করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারের উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রাকে ব্যাহত করা যাবে না। দেশ বিরোধী ষড়যন্ত্রকারী, চক্রান্তকারী বিএনপিকে এদেশের মানুষ প্রত্যাখান করেছে। বিএনপি জামায়াতের দুঃশাসনের কথা এদেশের মানুষ ভোলে নাই। সেনা ছাউনীতে জন্ম নেয়া বিএনপি এখন গণতন্ত্রের কথা বলে। রাজাকার-যুদ্ধাপরাধীদের গাড়িতে জাতীয় পতাকা দেয়া বিএনপি এখন গনতন্ত্রের কথা বলে। তাদের মুখে গণতন্ত্রের কথা শোভা পায় না। ক্ষমতায় থাকতে দেশের সম্পদ লুট করে বিদেশে পাচার করেছে। আর ক্ষমতায় না থাকতে পেরে দেশে আন্দোলনের মানুষ হত্যা করে, এই হলো বিএনপি’র রাজনীতি। গণধিকৃত বিএনপিকে আর কখনো এদেশের মানুষ রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় আনবে না।

আজ (রবিবার) শরীয়তপুরের নড়িয়ায় বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডের উদ্ধোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

উপমন্ত্রী বলেন, নৌকা স্বাধীনতার প্রতিক, উন্নয়নের প্রতিক।  নৌকায় ভোট দিয়ে আওয়ামীলীগকে ক্ষমতায় আনার কারণে জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এই তিন মেয়াদে ব্যাপক উন্নয়ন হয়েছে। দেশ বিশে^ মাথা উচু করে দাঁড়িয়েছে। বিএনপি আন্দোলনের নামে অগ্নিসন্ত্রাস, সহিংসতা করে দেশের অগ্রযাত্রাসহ সবকিছু ধ্বংস করে দিতে চায়। এটাই তাদের কাজ। এটা তারা করবেই। কারণ তারা জানে নির্বাচনের মাধ্যমে তারা কোনদিন ক্ষমতায় আসতে পারবে না। তাই দেশের মধ্যে অরাজক পরিস্থিতি সৃষ্টি করে পেছনের দরজা দিয়ে ক্ষমতায় আসার স্বপ্নে বিভোর বিএনপি।

এনামুল হক শামীম বলেন, বাংলাদেশের মানুষ একমাত্র বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ। বিদেশের পলাতক তারেক রহমানরা এদেশের মানুষের জন্য বিপদজনক। তাই আগামী নির্বাচনেও এদেশের মানুষ জননেত্রী শেখ হাসিনাকে আবারও ক্ষমতায় আনবে। আর জননেত্রী শেখ হাসিনা পঞ্চমবারের মতো বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হয়ে পৃথিবীর ইতিহাসে বিরল রেকর্ড স্থাপন করবেন।

এসময় শরীয়তপুরের নড়িয়া উপজেলায় ঐতিহ্যবাহী মুলফৎগঞ্জ মাদ্রাসা কমপ্লেক্সে “বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব এম. এ হান্নান আজাদ” ভবন, চাকধ উচ্চ বিদ্যালয়ে “বিজয় ৭১” ভবনের উদ্বোধন এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষ থেকে ঘড়িষার ইউনিয়নের বাংলা বাজারে অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে আর্থিক সহায়তা করেন উপমন্ত্রী।

এসময় তাঁর সঙ্গে ছিলেন, আওয়ামীলীগের  কেন্দ্রীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি উপ কমিটির সদস্য জহির সিকদার, নড়িয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শংকর চন্দ্র  বৈদ্য, নড়িয়া পৌরসভার মেয়র আবুল কালাম আজাদ, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক হাসানুজ্জামান খোকন প্রমূখ।

এই বিভাগের আরো খবর